Plan For The Best & Prepare For The Worst

2020 March এর আগে কি কেউ ভাবতে পেরেছিল এরকম একটা সময় আস্তে চলেছে, যেখানে মানুষকে সমস্ত কাজ ফেলে প্রাণের দায়ে ঘরে আবদ্ধ হয়ে থাকতে হবে। জীবনের সমস্ত গতি স্তব্ধ হয়ে যাবে। মানুষের কাছে মৃত্যু ভয় হবে সব থেকে বড় ভয়। কেউ না ভাবতে পারলেও বাস্তবে কিন্তু হয়েছে সেই রকমটাই। এই পৃথিবী থেকে বহু মানুষকে আজ বিদায় নিতে হচ্ছে। এ বিদায় এক অদ্ভুত বিদায়। কেন বলছি, শুনুন তাহলে।

আমাদের এই বাংলারই দুজন মানুষ, বহু বছর কর্ম সূত্রে Mumbai তে  থাকতেন। Husband এবং Wife দু জনকেই এই April মাসে এক সপ্তাহের মধ্যে  কেড়ে নিয়েছে Corona Virus।ওনাদের এক মাত্র মেয়ে, বয়স আনুমানিক 19-20 বছর, Quarantine এ রয়েছে, বাবা মার মৃত দেহ সে দেখতে পায় নি। শুধু জানতে পেরেছে যে ও আজ অনাথ হয়ে গেছে। Death Certificate হাতে পায় নি, আদৌ কোন দিন কোথাও পাবে কিনা, কিভাবে পাবে, কোথায় পাবে  ও জানে না।এ এক অদ্ভুত পরিস্থিতি। আমরা যা শুনছি, খবরে যা দেখছি, সেই খবর গুলোর পিছনে ও আর একটা বাস্তব সম্পূর্ণ অন্য জগৎ রয়েছে, এ এক নিদারুণ যন্ত্রণা। যে ভদ্রলোক মারা গেছেন তার ভাই দিল্লি তে থাকেন, তার সাথে আমাদের যোগাযোগ আছে। সব ঘটনা এখন ওখান থেকেই জানতে পারছি।উনি একজন নামকরা Virologist। ওনার সঙ্গে অনেক আলোচনা হয়েছে এই পরিস্থিতি নিয়ে।

Expert দের মতে, এখন তো এক রকম পরিস্থিতি চলছে, এর পর যখন Lockdown পরিস্থিতি  আস্তে আস্তে উঠে যাবে, তখন মানুষকে তো নিজেদের কাজে বাইরে  বেড়তেই হবে। এবার তখন আমাদের চার পাশে প্রচুর মানুষ স্বাভাবিক ভাবেই ঘুরবে যাদের মধ্যে অনেকেই থাকবে Asymptomatic ভাবে Corona Virus এ আক্রান্ত। অবাক ব্যপার হল তারা নিজেরাও সেটা জানবেন না।তাদের সংস্পর্শে এসে অনেকেই এই Virus এর কবলে পরবেন। যাদের যেমন শরীরের প্রতিরোধ ক্ষমতা (Immune System) তিনি সেরকম ভাবে ওটাকে প্রতিরোধ করতে পারবেন।এই কারনে এখন অনেক Expert রা বিভিন্ন Suggestion দিচ্ছেন যেগুলো মানলে নাকি প্রতিরোধ ক্ষমতা  বারবে। প্রতিরোধ খমতা রাতারাতি বাড়ানো যায় না। নিজের প্রতিরোধ ব্যবস্থা নিজেকেই করতে হবে।

আমি চিন্তিত অন্য কারণে। আমাদের Client দের মধ্যে বেশ কয়েকজন Doctor আজ এই COVID 19 এর সঙ্গে একদম সামনে থেকে লড়ছেন। অবসরে যখন কথা হয় তাদের সঙ্গে, কথায় কথায়  আমি যেটা অনুভব করেছি সেটা হোল,  আমারা যেমন Unnecessary আতঙ্কিত হব না, ঠিক তেমনি এই মহামারি ভয়ঙ্কর Vairas এর সামনে লড়াইয়ের  জন্য নিজেদের কিছু পরিকল্পনা (Planning) থাকবেনা এটা ও বোধ হয় ঠিক নয়। । এটা আমার মত, আপনি আমার মতের সঙ্গে সহমত নাও হতে পারেন।

ধরুন কোন  একজনের  Test Report Corona Virus Positive হল, তখন কোন সময় না দিয়েই তাকে হয় কোথাও Admit করা হবে নাহলে  Quarantine এ রাখা হবে।  বাড়ির অন্য সকল Member দেরকেও Quarantine এ নিয়ে যাওয়া হবে। এগুলো তো সবাই কম বেশী জানেন। যত জনকে এই ভাবে নিয়ে যাওয়া হবে হয়ত তার 1% বাঃ তারও কম Percentage মানুষ দুর্ভাগ্যবশত আর তার বাড়ি নাও ফিরতে পারেন। আমার Suggestion হল, এর Impact টা একটু ভেবে রাখা উচিত। এটা Negative ভাবনা নয়, সাবধানতা। দেখুন আমরা সব সময় Positive ভাববো ঠিকই কিন্তু একই ভাবে Worst Situation যদি সামনে এসেই যায় তাহলে তার জন্য Prepare থাকতে তো কোন বোকামো বা ক্ষতি নেই। 

বাড়িতে যা কিছু Valuable জিনিষ আছে সেগুলোকে হয় Locker বা কোন সুরক্ষিত যাগায় রাখা উচিত। বাড়ির প্রত্যেকটি Member দের সেটা জানা থাকারও প্রয়োজন আছে।আমি বুঝতে পারছি অনেকেই ভাববেন একটু বেশী বাড়াবাড়ি হচ্ছে। মাপ করবেন, আমি এটা জানি অনেকেই সাবধানতা নিতে চান। আমাকে তাদের জন্য হলেও বলতে হবে। 

যদি 14 Days Quarantine এ নিয়ে অন্য কোথাও যাওয়া হয় তাহলে কি কি জিনিস আমার সঙ্গে থাকা উচিত তার একটা List করে রাখলে খ্যতি কি। যেমন প্রয়োজনীয় কোন Medicine আপনাকে যদি Regular নিতে হয় তো সেগুলোর একটা List Ready রাখা, 14 days এর জন্য জামা কাপড় কি লাগতে পারে, Cash টাকা, Mobile Phone, Charger, প্রয়োজনীয় Gadjet। 

Mediclaim Policy র Document Ready রাখতে হবে, তার সঙ্গে  KYC Document গুলোও তৈরি রাখা প্রয়োজন।আপনার Absence এ (মানে যদি Quarantine এ থাকতেই  হয়) সংসার চালানর জন্য  প্রয়োজনীয় অর্থ কোথা থেকে কিভাবে আসবে, তার একটা Planning থাকা প্রয়োজন।দু একটা Blank Cheque এ প্রয়োজনে Sign করে ভরসা যুক্ত ব্যক্তির হাতে রেখে দেওয়া যেতে পারে। এমনকি ATM Card এর PIN ভরসা করা যায় এমন Family member কে Share করতে হতে পারে। Minimum দু মাস চলে যায় এরকম আন্দাজ করে Cash বাড়িতে রাখা উচিত।বাড়িতে অনেকের PET থাকে তাদের এমত অবস্থায় কি ব্যবস্থা নেওয়া হবে তার একটা পরিকল্পনা থাকা দরকার।

বিভিন্ন Password কে ঠিক ভাবে ব্যবহার এবং সুরক্ষিত করতে প্রয়োজনে Password Management System Follow করুন এবং তার Master Password টা Family Member দের কাছে Share করতে পারেন। হয়ত বাড়াবাড়ি মনে হতে পারে, সমস্ত Financial Instrument এর Nominee র নাম এবং তার সমস্ত Details ঠিক আছে কিনা একবার Cheque করে নিলে খ্যতি কি? 

আপনাদের যে Emergency Situation কে Manage করার জন্য Fund রাখা আছে সেটাকে প্রয়োজনে Family Member রা কিভাবে Access করবেন সেটা দেখিয়ে রেখে দিন। 

আপনার Financial Advisor এর Phone number এবং তাদের Farm এর বাকিদের Mobile number আপনাদের Family র বাকি Member দের কাছে দিয়ে রাখুন।

যে সমস্ত দোকান বা বাজার থেকে আপনার Regular জিনিষ পত্র নেওয়া হয় তাদের নাম এবং Mobile Number গুলো Family Member দের দিয়ে রাখুন। 

দেখুন, আমি কাউকে কোন Negative দিতে বা ভয় দেখাতে চাইছিনা। শুধু মাত্র সাবধানতার জন্য কিছু Planning বলতে চেয়েছি। এই COVID 19 এর কোন Past Reference আমাদের সামনে নেই, আজকের জীবিত প্রজন্মের কজনের কাছে Pandemic Situation Handle করার অভিজ্ঞতা আছে। নেই। দেখুন Jac Ma র মত একজন Optimistic ব্যক্তি কি বলছেন দেখুন।

 

আমাদের যেমন আপনাদের Financial Safety Security দেখা একটা Responsibility, আমার মনে হয় পরিস্থিতি প্রতিকূল মনে হলে তার আভাস দেওয়াটাও বোধ হয় খুব একটা অন্যায় নয়। খুব ভয়ে ভয়ে, অনেক দ্বিধা নিয়ে অল্প Just দু একটা বিষয় শুধু বললাম। যদি আপনাদের মনে হয় এগুলো জেনে নিয়ে যদি আপনাদের Safety Security বারাতে পারেন  তাহলে আপনার Comments অবশ্যই থাকবে ধরেই নিলাম। 

Stay Healthy, Stay Safe. Plan Accordingly। 

Related Articles

Call Us

or

Our phone lines are available from Monday to Friday 10 AM to 6PM and Saturday from 10 AM to 3PM.

Are You Having Any

Financial Problem?Queries?

If you are looking for expert help on your financial problems,
then you can fill your contact details to book a FREE personal session with our expert financial consultants.

13 thoughts on “Plan For The Best & Prepare For The Worst”

  1. Niranjan Sadhukhan

    খুব ভালো দরকারী একটা টপিক, আমি অনুরোধ করব এই article টা নিজেরা তো পড়বেন আর please please আরো অনেক মানুষ কে পড়ার সুযোগ করে দেবেন মানে এই article টা share অবশ্যই করবেন।

  2. DEBASIS UKIL

    ধন্যবাদ রায়বাবু , খুবই গুরুত্বপূর্ণ বিষয়টি নিয়ে আপনার লেখাটা পড়ে ভালো লাগলো ।

  3. আমাদের মত প্রত্যেকে প্রতিটা পদক্ষেপে সচেতন করার‌ জন্য অসংখ্য ধন্যবাদ দাদা। আমার মতে এগুলো নিয়ে ভাববার সময় এসেছে এখন।

  4. দেবজিত

    ধন্যবাদ রায় বাবু।। খুব উপকারী একটি তথ্য ।

  5. Ei artical er pratyek ti kotha khub importent ei artical ta jate onek manusher kache share kora jae srta amader ektu dekhte hobe….

  6. Planning is a must in every aspect of life whether at this critical situation or in the normal situation .At present we only concentrating on how to overcome the situation by saving our life, but none Can ignore that money plays an important role to save the life so it is also important for financialplaning for which we are having our most compitent financial advisor andwell wisher like Mr.Roy, who is always providing us with his valuable financial guide line to combat the financial crisis at the time of need.

  7. Tarun Kumar Pandit

    Very important article, particularly in the present situation….. Thanks Dada for further awaring us.

  8. Ajoy Kumar Mondal

    It is a very important and valuable article. Thank you Ashoke da for this type of article regarding safety and security in this present situation. Already I had taken maximum steps as per your instruction. I am very much thankful for your prescription in this situation.

  9. ভবানী প্রসাদ চক্রবর্ত্তী

    বাঃ , খুব ভালো । আপনি তো আমাদের কি কি করা বা নিয়ে যাওয়া দরকার এর একটা গুরুত্বপূর্ণ তালিকা বানিয়ে দিয়েছেন , – এর জন্য আমরা কৃতজ্ঞ। সত্যি উদ্ভুত কোন বিশেষ পরিস্থিতিতে , বিশেষ করে এই ধরণের, তাতে মাথা সঠিকভাবে কাজ না করাই স্বাভাবিক এবং সেক্ষেত্রে এই ব্লগটি খুব কাজে দেবে। অবশ্য এ পর্য্যন্ত পাওয়া আপনার সব ব্লগই খুব কাজের, যাকে বিজ্ঞাপনের ভাষায় বলা যেতে পারে , made our life easier। যাইহোক ভালো থাকুন এবং আমাদের জীবন আরও মধুময় করে তুলুন। ধন্যবাদ।

  10. Kalyanbrata Das

    এইসময়ে খুবই প্রয়োজনীয় কথাগুলো। ধন্যবাদ।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

error:
Scroll to Top